Translate

কবিতাঃ- ঘুড়ি উড়া


মোঃমাহিন সরকার,ইসলাম নগর,ঠাকুরগাঁও।


আব্বা আম্মা পড়তে বলে
আমি পড়বো কেমন করে?
মাঠে রহিমরা হৈ-চৈ করে উড়ায় ঘুড়ি
আমার মন কেমনে থাকে ঘরে?
আকাশে উড়ছে অনেক ঘুড়ি
ঘুড়িগুলোর নানান রকম রং,
জানালা দিয়ে যায় যে দেখা
ওদের ঘুড়ি উড়ার ঢং।
রহিমের ঘুড়ির রং সাদা কালো
করিমের হলুদ নীল,
করছে সবাই নাচানাচি
মুখে হাসি অনাবিল।
আকাশে উড়ছে ঘুড়ি
লাগছে ভারি বেশ,
পড়া রেখে উড়োবো ঘুগি
এ প্রস্তাব করছি আমি পেশ।
প্রস্তাব আমার নাকচ করে
আব্বা -আম্মা বলছে আমায় পড়,
পড়ায় বসবে মন কেমন করে?
ঘুড়ি উড়া যে লাগছে মধুকর।
না আব্বা -আম্মাকে বলে লাভ হবেনা
তারা বলবে যেতে পড়ে,
তার চে চুপিচুপি কেটে পড়ি
আমার ঘুড়িটি সঙ্গী করে।
অবশেষে আব্বা -আম্মার নজর এরিয়ে
উড়াতে এলাম ঘুড়ি,
এবার আমার ঘুড়ি উড়ছে আকাশে
মজা লাগছে ভুরি ভুরি।


 

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্য