Translate

অদম্য মেধাবী হয়েও উচ্চ শিক্ষা অনিশ্চিত

অদম্য মেধাবী হয়েও উচ্চ শিক্ষা অনিশ্চিত


আব্দুল্লা বিন সিরাজ, শিশুবার্তা প্রতিনিধি, রংপুরঃ

শিক্ষায় জাতির মেরুদন্ড। যে জাতি যত শিক্ষিত সে জাতি তত উন্নত। কিন্তু যে জাতির মেধাবীরা পায় না উচ্চ শিক্ষার সুযোগ সে জাতি উন্নত হয় কীভাবে???

নাটোরের আগদীঘা উচ্চ বিদ্যালয় থেকে গোল্ডেন এ প্লাস পেয়ে উত্তীর্ণ ভ্যানচালক শফিকুল ইসলামের মেয়ে সুমা খাতুন মেধাবী হওয়া সত্তেও আজ অনিশ্চিত ভবিষ্যত নিয়ে বেচে আছে। কলেজে ভর্তি তার হয়ে পরেছে অনিশ্চিত।।
আবার পিতৃহীন আছমিনা আক্তার মিম টিউশনি করে এস.এস.সি. পরীক্ষার সব খরচ চালিয়ে । এবারের এস.এস.সি. পরীক্ষায় পঞ্চগড় কালেক্টরেট আদর্শ শিক্ষা নিকেতন থেকে জিপিএ ৫ পাওয়া সত্তেও কলেজে ভর্তি হতে পারছে না। অর্থাভাবে আজ তাদের দুবেলা খাওয়া অনিশ্চিত কলেজের খরচ চালাবে কে???

এরকম হাজারো মেধাবীর সপ্ন ভেঙে যায় অর্থের কারনে আমি নিজেও ২০১৭ সালে তুলশীরহাট উ”চ বিদ্যালয় থেকে জিপিএ ৪.৮৩ পেয়ে উত্তীর্ণ হই। উচ্চতর গণিত, রসায়ন এবং জীব বিজ্ঞানের ব্যাবহারিকে টাকা না দেওয়ায় ২৫ নম্বর পাই নাই। এই বিষয়গুলিতে ৭৯ পেয়ে এ প্লাস পাই নাই। অর্থাভাবে গ্রামের অজপারাগায়ের একটি কলেজে ভর্তি হয়ে অনিশ্চিত ভবিষ্যতের সংগী আমার এক বন্ধু আল-আমিন অদম্য মেধাবী ৬ষ্ঠ শ্রেণিতে থাকাকালীন অর্থাভাবে লেখাপড়া বাদ দিয়ে গার্মেন্টস শ্রমিক হিসেবে বর্তমানে জীবীকা নির্বাহ করছে।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্যসমূহ