Translate

এক সপ্তাহেও খোজ মেলেনি নওগাঁ মাদ্রাসা ছাত্র মুরাদের!

এক সপ্তাহেও খোজ মেলেনি নওগাঁ মাদ্রাসা ছাত্র মুরাদের!


ইখতিয়ার উদ্দীন আজাদ, নওগাঁঃ
নওগাঁয় মুরাদ হোসেন (১২) নামে এক মাদ্রাসা ছাত্র ৮দিন ধরে নিখোঁজ রয়েছে।

সে জেলার মান্দা উপজেলার দেলুয়াবাড়ী নুরানী হাফেজিয়া মাদ্রাসা ও লিল্লাহ বোডিং ও এতিম খানার শিক্ষার্থী।

এ ঘটনায় তার বাবা ২৬ মে বুধবার মান্দা থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করেছেন। জিডি নং-৯৬২।

নিখোঁজ মাদ্রাসা ছাত্রের বাবা অাকতার হোসেন জানান, 'ছেলে মুরাদ হোসেন গত ৯ অাগষ্ট ২০১৮ ইং তারিখে
দেলুয়াবাড়ী নুরানী হাফেজিয়া মাদ্রাসা ও লিল্লাহ বোডিং ও এতিম খানায় হেফজো পড়ার জন্য ভর্তি করি। অামার ছেলে সেখানে অবস্থান কালে গত ২১ জুন ২০১৯ ইং তারিখ রোজ শুক্রবার বেলা অনুমান পনে ১টার দিকে অন্যান্য ছাত্রদের সাথে দেলুয়াবাড়ী সরদারপাড়া জামে মসজিদে জুম্মার নামাজ পড়তে যায়। কিন্তু নামায শেষে তার সহপাঠীরা মাদ্রাসায় ফেরত অাসিলেও অামার ছেলে মাদ্রাসায় ফেরত অাসে নাই। সে অামার বাড়িতেও যায় নাই।নিকট অাত্মীয় স্বজনদের বাড়িসহ সম্ভাব্য স্থানে অনেক খোঁজাখুঁজি করিয়াছি। কিন্তু এখন পর্যন্ত অামার ছেলের কোনো সন্ধান পাওয়া যায় নাই। খোঁজাখুঁজি চলিতেছে। সন্ধান পাওয়া গেলে পরবর্তীতে জানানো হইবে। এমতাবস্থায় সন্তানকে হারিয়ে পরিবারের মাঝে চরম উদ্বেগ উৎকন্ঠা বিরাজ করছে।

উল্লেখ্য, তার জন্মস্থান জেলার মহাদেবপুর উপজেলার গোবিন্দপুর গ্রামে। বর্তমান অাবাসস্থল নিয়ামতপুর উপজেলার গাবতলী গ্রামে। তার গায়ের রং উজ্জল শ্যামলা, মুখমন্ডল গোলাকার, স্বাস্থ্য মিডিয়াম, উচ্চতা ৪ফুট ৮ ইঞ্চি, পড়নে ছিলো সাদা জুব্বা ও সাদা পায়জামা। সে নওগাঁ জেলার অাঞ্চলিক ভাষায় কথা বলে। কোনো সহৃদয়বান ব্যক্তি তার সন্ধান পেলে তার বাবার মোবাইল নাম্বার ০১৭৬০-৮০০৮১৬ তে জানানোর জন্য বিশেষ অনুরোধ জানানো হয়েছে।

মান্দা থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মোজাফফর হোসেন বলেন, শিশুটি নিখোঁজের ঘটনায় বিভিন্ন পুলিশ স্টেশনে বার্তা প্রেরণসহ তদন্তকাজ অব্যাহত রয়েছে।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্য