Translate

সবার সহযোগিতায় ফাহিমকে বাঁচাতে চায় তার পরিবার

সাকলাইন শিহাব,সিরাজগঞ্জ:

সিরাজগঞ্জের পৌর এলাকার একডালা পশ্চিমপাড়া বটতলা গ্রামের মোঃ ফাহিম (৫)এর চিকিৎসার জন্য সকলের কাছে আবেদন জানিয়েছেন মা ফাতেমা খাতুন। সব শিশুর মত ফাহিম একটু অস্বাভাবিক হয়ে জন্ম গ্রহণ করেজন্ম থেকে মাথার পিছনে দেখা যায় টিউমারযা ফাহিমের বয়সের সাথে সাথে বড় হচ্ছেএতে শরীরের বিভিন্ন রকমের সমস্যা দেখা দিচ্ছে বলে জানান তার মা ফাতেমা খাতুনফাহিম কথা বলতে পারে নাপারে না দাঁড়িয়ে থাকতেপুরো শরীরে নেই কোন শক্তি

ছোট্ট ফাহিমকে নিয়েই বাবা আলমগীরের চিন্তার শেষ নেইবাবা আলমগীর হোসেন পেশায় রিক্সাচালকনিজের কোনো ঘরবাড়ি নেইঘরে নেই কোন পুঁজিথাকছেন অন্যের ঘরেযতটুকু অর্থ ছিলো একমাত্র ছেলের চিকিৎসার জন্য বিলিয়েছেন আলমগীর হোসেনকিন্তু তবুও সুস্থ্য হয়ে ওঠেনি ফাহিমছেলের অসুস্থতা ও সংসারের টানাটানিতে দিশেহারা ফাহিমের হতদরিদ্র পরিবার

জানা যায়,ফাহিমের বয়স যখন ৩ বছরচিকিৎসার জন্য ঢাকায় নিয়ে গেলে সেখানে প্রায় ৭০/৮০ হাজার টাকা খরচ হয়এই টাকা জোগার করতে হিমশিম খেতে হয়েছে হতদরিদ্র এই পরিবারটিকেচিকিৎসা করে কোনো ফলাফল না মেলার কারনে অপারেশনের পরামর্শ দেন চিকিৎসক কিন্তু টাকার অভাবে অপারেশন করাতে পারেনি ফাহিমের পরিবার

ফাহিমের পরিবার জানিয়েছেন, অপারেশনের জন্য প্রায় লক্ষাধিক টাকা দরকার, যা তার পরিবারের পক্ষ্য জোগার করা অসম্ভব তাই অসুস্থ ছেলে ফাহিম ও দিশেহারা নিয়েই ফিরে আসেন বাড়িতেবাড়িতেও বিভিন্ন রকম চিকিৎসার চেষ্টা করেন তারা,তবুও মেলেনি কোন ফলাফল

মা ফাতেমা খাতুন  কান্নাজড়িত কণ্ঠে বলেন ,আমি আমার ছেলেকে বাঁচাতে চাইচিকিৎসা করে আমার ছেলেকে সুস্থ্য জীবনে ফিরিয়ে আনতে চাইকিন্তু অর্থ পুঁজি কিছু না থাকায় সম্ভব হচ্ছে নাবর্তমানে করোনা মহামারীসহ বিভিন্ন সমস্যা নিয়ে দিন পার করছেন হতদরিদ্র পরিবারটিফাহিমের সুস্থ্য ও স্বাভাবিক জীবনে ফিরিয়ে আনা আমাদের সম্ভব না, তাই সরকার ও বিত্তবানদের কাছে সহযোগিতা কামনা করছেন এই হতদরিদ্র পরিবারটি

সহযোগিতায় প্রয়োজনে প্রতিবেদককে দেওয়া বিকাশ নাম্বর: ০১৭৭৭২৫৭৮৭১


একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্যসমূহ